• Parabaas
    Parabaas : পরবাস : বাংলা ভাষা, সাহিত্য ও সংস্কৃতি
  • পরবাস | সংখ্যা ৯০ | এপ্রিল ২০২৩ | সম্পাদকীয়
    Share
  • সম্পাদকীয় : পরবাস

    খুব সম্প্রতি পরবাস-এর দপ্তরে শুভময় রায়ের একটি চিঠি আসে, মনে হল সেটি এই সংখ্যার সম্পাদকীয় হিসেবে উপযুক্ত। তাই তাঁর অনুমতি নিয়ে খুব সামান্যরকম ফর্ম্যাটিং পালটে নিচে দেওয়া হলো।
    ***

    বিগত সংখ্যার সম্পাদকীয়তে অতিথি সম্পাদক সিদ্ধার্থ মুখোপাধ্যায় বলেছিলেন ‘অনেক স্মৃতি, অনেক অনুভূতি জমা হয়ে আছে’ পরবাস পত্রিকার আর্কাইভে। সম্প্রতি ‘আজকাল’ সংবাদপত্রের রবিবাসরে (এপ্রিল ৯, ২০২৩) শ্রদ্ধেয় অধ্যাপক পবিত্র সরকারের অতি সময়োচিত এবং মনোজ্ঞ আলোচনা ‘বিশ্বের কাছে কেমন করে পৌঁছবে বাংলা সাহিত্য’ প্রবন্ধটি পড়ে মনে হল বাংলা থেকে ইংরেজি এবং অন্যান্য অনেক ভাষা থেকে বাংলায় সাহিত্যের শ্রেষ্ঠ কীর্তিগুলির অজস্র অনুবাদও কী জমা হয়ে নেই পরবাস এর মহাফেজখানায়?

    শুধু কী তাই? অনুবাদ বেশ কিছুদিন ধরেই কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে বিশেষ পঠন-পাঠনের বিষয় হয়ে উঠেছে। ইংরেজি এবং বাংলায় পরবাস গত দুই দশকের অধিক কাল ধরে যেসব প্রবন্ধ-সমালোচনা-চিঠিপত্র ইত্যাদি প্রকাশ করেছে, তার মধ্যেও ছড়িয়ে আছে অনুবাদ সম্পর্কে দিকপাল লেখক ও পণ্ডিতদের বহু চিন্তাভাবনা। বিশ্বের সব পাঠকের কাছে উন্মুক্ত এই ওয়েব-উদ্যোগে অনুবাদ এবং বিশ্বসাহিত্যের বিভিন্ন জ়ঁর নিয়ে বাংলা এবং ইংরেজিতে অজস্র প্রবন্ধ এখনও প্রকাশিত হয়ে চলেছে। অনূদিত বইয়ের প্রকাশ এবং অনুবাদ বিষয়ক বই নিয়ে পুস্তক-সমালোচনাও পরবাস-এর আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ অবদান। গত আড়াই দশক ধরে বহু কবি-লেখক-অনুবাদকের রচনায় সমৃদ্ধ পরবাস এর আর্কাইভাল মূল্যও অপরিসীম। এখন প্রয়োজন একটি পৃথক অনুবাদ বিভাগে সব কিছু সুবিন্যস্ত রাখা।

    বাংলা থেকে ইংরেজি অনুবাদের জন্য আমাদের একটা বিশেষ বিভাগ আছে। আমরা চাই অন্যান্য বিভিন্ন ভাষা থেকে বাংলায় অনুবাদের জন্যে অনুরূপ একটি বিভাগ। শুধু সব প্রকাশিত অনুবাদ এক জায়গায় আনা নয়, ভবিষ্যতে এই বিভাগটিকে কী করে আরও উন্নত করা যায় তাও আমাদের ভাবতে হবে। একটা সম্ভাব্য ও ইচ্ছুক লেখকগোষ্ঠী তৈরি করতে পারলে ভালো হয় যাঁরা বাংলা-ইংরেজি ছাড়াও অন্য আরেকটি ভাষায় পারদর্শী। পরবাস এর পাঠকেরা যেহেতু অনেকেই প্রবাসী বাঙালি – পৃথিবীর বিভিন্ন দেশে তাঁরা ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছেন – তাই এই কাজ পরবাস এর পক্ষে সুসম্পন্ন করা হয়ত সহজতর হতে পারে।

    ইদানীং বহু বাঙালি লেখক ইংরেজি এবং অন্যান্য ইউরোপীয় ভাষায় তাঁদের সৃজনধর্মী সাহিত্যের অনুবাদের ব্যাপারে উৎসাহ প্রকাশ করছেন। যোগ্য অনুবাদকও হয়ত দুর্লভ নন। কিন্তু দুয়ের মধ্যে যোগাযোগের অভাবেই হয়ত অনেক গুরুত্বপূর্ণ সাহিত্যকর্মের অনুবাদ সুসম্পন্ন হচ্ছে না। পরবাস এর মত সংস্থা লেখকের সঙ্গে যোগ্য অনুবাদকের একটি গুরুত্বপূর্ণ যোগসূত্র হয়ে উঠতে পারে।


    এই মুহূর্তে অধিকতর গুরুত্বপূর্ণ বোধহয় অনুবাদ নিয়ে পরবাস এর এই বিবিধ উদ্যোগের সঠিক প্রচার। উল্লিখিত প্রবন্ধে পবিত্রবাবু ‘শব্দঘর’ নামে সাহিত্যপত্রিকায় বাংলাদেশের সাহিত্যের ইংরেজি অনুবাদের দিকে দৃষ্টি আকর্ষণ করে বলেছেন এ ‘জাতীয় উদ্যোগ অনেক বেশি বাঞ্ছনীয়’ কারণ কোনও পত্রিকায় একবার বেরোলে আলোচনা-সমালোচনার মাধ্যমে অনুবাদের আরও উন্নতির অবকাশ থাকে। স্মরণে থাকলে তিনি হয়ত পরবাস নামটিও একই সঙ্গে উচ্চারণ করতেন। পরবাস এর সহৃদয় পাঠক, বন্ধু এবং সহযোগীদের আন্তরিক প্রচেষ্টাই এই উদ্যোগের প্রচারে আমাদের পাথেয়।

    সবাই বাংলা নববর্ষের শুভেচ্ছা জানবেন।

    অতিথি সম্পাদক--শুভময় রায়

  • মন্তব্য জমা দিন / Make a comment
  • (?)